page contents
লাইফস্টাইল, সংস্কৃতি ও বিশ্ব

দাঁত ফ্লসিং থেকে রোগীর হাঁটুতে যেভাবে ইনফেকশন ছড়ালো!

আমেরিকার উইসকনসিনের ৬৫ বছর বয়সের একজন নারী হাসপাতালের ইমার্জেন্সি রুমে ঢুকে হাঁটুর ব্যথায় কাতরাতে থাকেন। পাঁচ বছর আগে তার হাঁটু প্রতিস্থাপনের অপারেশন হয়েছিল। শেষে চিকিৎসকরা বুঝতে পারেন তার অতিরিক্ত দাঁতের ফ্লসিংই এর জন্য দায়ী।

তিনি যখন ইমার্জেন্সি রুমে ব্যথায় কাতরাতে থাকেন, চিকিৎসকরা তার প্রোসথেটিকের ফ্লুইডের নমুনা পরীক্ষা করার সিদ্ধান্ত নেন। দেখা যায় স্ট্রেপটোকোকাস গর্ডোনিল ব্যাকটেরিয়ার কারণে তার হাঁটুতে ইনফেকশন হয়েছে।

এটা আশ্চর্যের, কারণ, এই ব্যাকটেরিয়া শুধু মুখেই পাওয়া যায়। অপারেশনের পর সমস্যাবিহীন পাঁচ বছর পার করার পর হঠাৎ করে এই ব্যাকটেরিয়া কীভাবে ওই নারীর হাঁটুতে গেল?

উত্তরটি পাওয়া গেল ওই নারীর দাঁত পরিষ্কার করার রুটিনে একটি ছোট পরিবর্তন থেকে। তিনি হঠাৎ করে বেশ জোরেশোরে দাঁত ফ্লস করা শুরু করেছিলেন এবং এর ফলে তার মাঢ়ি থেকে রক্ত বের হয়।

চিকিৎসকরা রিপোর্টে বলেছেন জোরে ডেন্টাল ফ্লস করার কারণে মাঢ়ি কেটে যাওয়ায় ওই ব্যাকটেরিয়া ওই নারীর রক্তপ্রবাহে প্রবেশ করে। রক্তপ্রবাহের মাধ্যমে ব্যাকটেরিয়া রোগীর হাঁটুতে গিয়ে পৌঁছায়।

শরীরের অন্য কোথাও যাওয়ার চেয়ে হাঁটুর প্রোসথেসিসে যাওয়া ব্যাকটেরিয়াদের জন্য সহজ ছিল। কারণ প্রোসথেসিসের প্রতিরোধ ক্ষমতা শরীরের অন্যান্য জায়গার তুলনায় কিছু কম। ক্ষতিকর অণুজীব প্রতিরোধের অক্ষমতাকে ব্যবহার করে অণুজীবগুলি এই কৃত্রিম জয়েন্টগুলিতে বেড়ে ওঠে।

এই ধরনের ইনফেকশনের খুব দ্রুত চিকিৎসা প্রয়োজন। বেশি দেরি হয়ে গেলে ব্যাকটেরিয়া প্রোসথেসিসে একটি প্রতিরোধ গড়ে তোলে। ব্যাকটেরিয়া যদি সেখানে বিস্তার ঘটানোর মত সময় পায় তাহলে হাঁটুর প্রোসথেসিস সারানো মারাত্মক কঠিন হয়ে পড়ে।

ইনফেকশন সারিয়ে তুলতে চিকিৎসকরা সেই নারীর হাঁটু খুলে যত বেশি সম্ভব ব্যাকটেরিয়া পরিষ্কার করেন। এরপর তাকে দীর্ঘমেয়াদী অ্যান্টিবায়োটিক প্রেসক্রাইব করেন।

floss

অধিকাংশ মানুষ কোনো সমস্যা ছাড়াই দাঁত ফ্লস করে

সৌভাগ্যবশত সেই নারীটির হাঁটুতে নতুন করে আর প্রতিস্থাপনের অপারেশন করতে হয় নি, আগের প্রতিস্থাপনই রয়েছে। তবে যতদিন তার প্রোসথেসিস আছে ততদিন তাকে এই অ্যান্টিবায়োটিক গ্রহণ করতে হবে।

এটা আলাদা একটা ঘটনা, অধিকাংশ মানুষ কোনো সমস্যা ছাড়াই দাঁত ফ্লস করে।

আপনার যদি হাঁটুতে জয়েন্ট রিপ্লেসমেন্ট অপারেশন হয়েও থাকে, তবুও আপনি নিয়মিত ডেন্টাল ফ্লস করতে পারেন। আপনার মাঢ়ি কেটে না গেলে ডেন্টাল ফ্লস থামানোর কোনো কারণে নেই।

হাঁটুতে জয়েন্ট প্রতিস্থাপনের অপারেশনের পর শতকরা ২ ভাগেরও কম রোগীর ইনফেকশন হয়। ইনফেকশন হওয়ার পরিমাণ কম, আর এই ধরনের ঘটনা থেকে ইনফেকশন হওয়ার ঘটনা আরো কম।

এই ব্যাকটেরিয়ার কারণে অপারেশন করা হাঁটুর জয়েন্টে ইনফেকশন হওয়ার আরো ঘটনা আছে, তবে তা জোরেশোরে দাঁতের ফ্লসিং করা থেকে নয়।

বেলজিয়ামে ৭৮ বছর বয়সী একজন নারীর একই ঘটনা ঘটেছিল। তার প্রোসথেটিকেও এই স্ট্রেপটোকোকাস গর্ডোনিল ব্যাকটেরিয়া থেকে ইনফেকশন হয়েছিল, কিন্তু একই সাথে তার হৃৎপিণ্ডের ধমনীতে ও একটি আর্টারিতে ব্যথা ছিল। হাঁটুর প্রোসথেসিস প্রতিস্থাপন করার সাথে সাথে তার হার্টের একটা ভাল্বও বদলাতে হয়েছিল।

About Author

সাম্প্রতিক ডেস্ক