page contents
Breaking News

‘দ্য আইরিশম্যান’ এর সেটে রবার্ট ডি নিরো ও মার্টিন স্করসেজি’র পুনর্মিলনী (ছবি)

গত ২৯ আগস্ট, ২০১৭ তারিখে পরিচালক মার্টিন স্করসেজি’র নতুন গ্যাংস্টার সিনেমা ‘দ্য আইরিশম্যান’ এর শুটিং শুরু হয়। পরবর্তীতে ২১ সেপ্টেম্বর শুটিং চলাকালীন সেটে তোলা কিছু ছবি মুক্তি দেওয়া হয় অনলাইনে।

ছবিগুলিতে অভিনেতা রবার্ট ডি নিরো, জো পেশি এবং পরিচালক স্করসেজিকে দেখা যাচ্ছে।

ছবির সেটে জো পেশি

১৯৯৫ সালে স্করসেজির আরেক গ্যাংস্টার সিনেমা ‘ক্যাসিনো’ এর পর এই তিনজন একসাথে কোনো ছবিতে কাজ করেন নাই দীর্ঘ প্রায় ২২ বছর। জো পেশি ২০১০ সালের পর থেকে অবসরেই আছেন। হয়তো স্করসেজি বলেই অবসর ভেঙে আবার অভিনয়ে ফিরে আসলেন।

‘আইরিশম্যান’ তাদের চতুর্থ প্রজেক্ট। এর আগে ক্যাসিনো ছাড়াও ‘গুডফেলাস’ (১৯৯০) ও ‘রেজিং বুল’ (১৯৮০) এ এই তিন কিংবদন্তীকে দেখা গিয়েছিল।

ছবির সেটে রবার্ট ডি নিরো

আমেরিকান শ্রমিক ইউনিয়ন নেতা জিমি হফার নিখোঁজ হওয়ার রহস্যের বাস্তব ঘটনা অবলম্বনে ছবির কাহিনি। অভিনয়ে আরো আছেন আল পাচিনো—যিনি প্রথমবারের মতো স্করসেজির সাথে কাজ করছেন—এবং হার্ভি কাইটেল।

জো পেশি ও ডি নিরো

আবারো গ্যাংস্টার জঁনরায় ফিরে যাওয়া নিয়ে স্করসেজি একটি সাক্ষাৎকারে জানান, এ জঁনরায় তার আগের সিনেমাগুলির চাইতে ‘দ্য আইরিশম্যান’ এর অ্যাপ্রোচ ভিন্নরকম হবে—“আমার মনে হয় এই সিনেমার ব্যাপারটা আলাদা। ‘গুডফেলাস’ আর ‘ক্যাসিনো’র যে নিজস্ব স্টাইল আমি তৈরি করেছিলাম, সেটা আসলে স্ক্রিপ্টেই ছিল। সিনেমার সব স্টাইল, প্রতিটা কাট কিংবা ফ্রিজ-ফ্রেম, এসবকিছু ঠিক করা ছিল অনেক আগে থেকেই। কিন্তু এবার তা একটু আলাদা।”

মার্টিন স্করসেজি (বাঁয়ে) ও জো পেশি

সিনেমার গল্প চলবে কয়েক দশক জুড়ে। তাই রবার্ট ডি নিরোকে একই সাথে বৃদ্ধ এবং তরুণ অবস্থায় দেখানোর জন্য কম্পিউটার জেনারেটেড ইম্যাজেরি (সিজিআই) ব্যবহার করা হবে।

এই উদ্দেশ্যে যে বিশাল বাজেটের প্রয়োজন, তার যোগান দিতে অধিকাংশ বড় স্টুডিওই নিজেদের অনীহা প্রকাশ করে। স্করসেজি’র মতো খ্যাতিমান পরিচালক থাকা সত্ত্বেও বর্তমান হলিউডে গ্যাংস্টার সিনেমার বক্স অফিসে তেমন একটা চাহিদা না থাকায় এই সঙ্কটের মুখে পড়েন স্করসেজি ও তার দল।

সেটে স্করসেজি

পরে অনলাইন ভিত্তিক সংস্থা নেটফ্লিক্স প্রায় সাড়ে আট কোটি ডলারের প্রোডাকশন বাজেট দিয়ে এই ছবিকে এগিয়ে নিতে রাজি হয়।

ডি নিরো মনে করেন, নেটফ্লিক্সের মতো সংস্থা না থাকলে এখনকার সময়ে এরকম একটা সিনেমা হয়তো কখনোই নির্মাণ করা সম্ভব হতো না।

সূত্র. স্ক্রিন র‍্যান্টএস্কয়ার

কমেন্ট করুন

মন্তব্য

About Author

সাম্প্রতিক ডেস্ক

Leave a Reply