page contents
লাইফস্টাইল, সংস্কৃতি ও বিশ্ব

ষাট Archive

যার নাম মাতৃকুলনাশনম্

আমাদের সময়েই, ১৯৬২ সালে, শেষ হয় বৃটিশ আমলে প্রচলিত ম্যাটরিকুলেশন (সংক্ষেপে ‘ম্যাটরিক’) পরীক্ষার পদ্ধতি।

দেলদুয়ার, চারান ও স্ট্রং ডায়রিয়া

দেলদুয়ারে বসেই মীর সাহেব 'বিষাদ সিন্ধু' রচনা করেন ও উৎসর্গ করেন করিমুন্নেসাকে।

বজ্র, টারজান ও দস্যু বাহরাম

কাজী আনোয়ার হোসেনের নামে প্রকাশিত হলেও সিরিজটি [কুয়াশা] লিখতেন রাহাত খান।

ঘাড়ে একটা ভূত

এভাবেই ক্লাশ সেভেনেই আমি পাড়া ছাড়িয়ে, ক্লাশ ছাড়িয়ে শহরের একজন প্রতিষ্ঠিত কবি। সেটা ১৯৫৮ সাল।...

সেদিনের সেই ওসতাদ

ষাটের দশকের শেষ দিকে সম্বোধন হিসেবে ‘ওসতাদ’ ব্যাপক ভাবে ছড়িয়ে পড়েছিল সাহিত্য-সংস্কৃতির নবীন মহলে।