page contents
সমকালীন বিশ্ব, শিল্প-সংস্কৃতি ও লাইফস্টাইল

ময়মনসিংহ Archive

চর জেলখানার চর, ময়মনসিংহ

নদের পাড়ে কলাই খেত। তা থেকে একটু ভেতরে গেলে চোখে পড়ে লাউ, শিম, ঢেড়স, মুলা, লালশাক ও খিরার খেত।

দাপুনিয়া, ময়মনসিংহ

দাপুনিয়ার কিছু গ্রাম এখনো দেখা বাকি। বেশি গিয়েছি ৭ নং দাপুনিয়া। চাড়াল পাড়া বাজারে। পিঁয়াজু খাইতে। বাজার তেমন বড় না।

কাশিয়ার চর, ভাবখালী, ময়মনসিংহ

যাওয়ার সময় দেখি একটা লোক ঘর মেরামত করার জন্য বাঁশ ফালি করছেন। আমাদের রাস্তা দেখিয়ে দিলেন, "এইদিক দিয়ে যান, সামনে নদী পাবেন।"

কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ময়মনসিংহ

বিশ্ববিদ্যালয়ের অামবাগানে গেলে একটু বসতে ইচ্ছে করে। দুই পাশে বিশাল ধানক্ষেত আর নীরব রাস্তা।

বারিন্দা

কয়েক বছরের মধ্যে সম্ভবত বারিন্দা বলতে ব্যালকনি বা আমার ভাষায় যেইটা আসলে গ্রিল দেওয়া খাঁচা, সেইটাই বুঝাবে।

জয়নুল উদ্যান, ময়মনসিংহ

ঢাকা থেকে বাড়িতে গেলে বিকালে আমরা যেখানে আড্ডা দেই তার পুরনো নাম সাহেব কোয়ার্টার পার্ক। এটা এখন জয়নুল উদ্যান হয়েছে।

সিজোফ্রেনিক বিকালগুলি

মাঝে-মধ্যে ময়মনসিংহ যাই। আমার আর মোসাদ্দেক ভাইয়ের সেই রাস্তায় লোক চলাচল নেই, শ্যাওলা জমেছে।

গলির মুখে বেতো ঘোড়া

আমি এমনিতে পশুপ্রেমী না। জীবনেও কোনো পশুপক্ষী আমি পালি নাই।

মেমসাব

ক্লডিয়ার আম্মা খুব দুঃখ দুঃখ স্বরে আমার আঙ্গুলে ব্যান্ডেজ বান্ধতে বান্ধতে কইতেন, “কিউয়ি আর সানশাইন তো এমনিতে কী ভদ্র পাখি! ক্যানো যে এমন করলো—তুমি কি ওদের কিছু করেছিলে, ডার্লিং?”